নড়াইলের কৃতি সন্তান শেখ নাজমুল আলমকে ডিআইজির র‌্যাংক ব্যাজ পরাছেন পুলিশের আইজিপি ড. জাবেদ পাটোয়ারী

3

নড়াইল অফিস : নড়াইলের কৃতি সন্তান শেখ নাজমুলকে ভালো কাজ ও ত্যাগের স্বীকৃতি স্বরূপ ডিআইজির র‌্যাংক ব্যাজ পরালেন পুলিশের আইজিপি ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী: ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) যুগ্ম কমিশনার (ক্রাইম) শেখ নাজমুল আলমকে গতকাল ডিআইজি পদের র‌্যাংক ব্যাজ পরিয়েছেন বাংলাদেশ পুলিশের আইজিপি ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী। পুলিশ সদর দফতরে আইজিপি তাকে এই ব্যাজ পরিয়ে দেন। পুলিশ সদর দফতরের এআইজি (মিডিয়া) সোহেল রানা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এর আগে গত ২৪ অক্টোবর রাষ্ট্রপতির আদেশে উপসচিব ধণঞ্জয় কুমার দাস স্বাক্ষরিত এক আদেশে তাকেসহ আরও সাত জন অতিরিক্ত ডিআইজিকে পদোন্নতি দিয়ে ডিআইজি করা হয়েছিল। পদোন্নতি পাওয়া পুলিশ কর্মকর্তা শেখ নাজমুল আলম এর আগে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের উত্তর বিভাগে দায়িত্ব পালন করেন। এরপর তিনি ২০১৭ সালে যুগ্ম কমিশনার হিসেবে পদোন্নতি পান। ভালো কাজ ও ত্যাগের স্বীকৃতি স্বরূপ এ পুলিশ কর্মকর্তা পাঁচবার বাহিনীর সর্বোচ্চ রাষ্ট্রীয় সম্মাননা প্রেসিডেন্ট পুলিশ মেডেল (পিপিএম) ও বাংলাদেশ পুলিশ মেডেল (বিপিএম) অর্জন করেছেন। এ ছাড়া তিনি একবার আইজিপি ব্যাচ প্রাপ্ত হন। উল্লেখ্য, ১৯৯৮ সালে ১৭তম বিসিএসে পুলিশ ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হয়ে কর্মজীবন শুরু করেন শেখ নাজমুল আলম। ২০১৩ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি ডিএমপিতে যোগদান করে একই বছরের ১ জুন ডিবিতে দায়িত্ব পান। তার আগে নারায়ণগঞ্জ ও নেত্রকোনায় জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) ও প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের স্পেশাল সিকিউরিটি ফোর্সেও (এসএসএফ) দায়িত্ব পালন করেছেন। এ ছাড়া কর্মজীবনের বিভিন্ন সময় তিনি ভোলা, পঞ্চগড়, সারদা পুলিশ একাডেমি ও মুন্সীগঞ্জ জেলায় চাকরি করেছেন। প্রতিক্রিয়ায় নড়াইল জেলার কৃতি সন্তান শেখ নাজমুল আলম বলেন, ‘আমি মনে করি ভালো কাজের স্বীকৃতি হিসেবেই আমাকে পদোন্নতি দিয়েছেন। এতে আমি রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, আইজিপিসহ সবাইকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আমি এই পদমর্যাদা ধরে রাখতে সুনামের সাথে কাজ করার চেষ্টা করব। এছাড়া পুলিশকে জনবান্ধব করতে যথাযথ ভূমিকা পালনের চেষ্টা চালিয়ে যাব।